হোম অনুষ্ঠান সুরগাঁও, নিকট ও দূরগাঁও

সুরগাঁও, নিকট ও দূরগাঁও

সুরগাঁও, নিকট ও দূরগাঁও
201
0

মঞ্চ ও টেলিভিশনের জনপ্রিয়, সফল নাট্যকার মাসুম রেজা ১৬ বছর পর দর্শকদের সামনে হাজির হচ্ছেন তার নতুন নাটক ‘সুরগাঁও’ নিয়ে। এই মঞ্চনাটকটির রচনা ও নির্দেশনা তারই। এর আগে শেষ তিনি ২০০০ সালে নির্দেশনা দিয়েছিলেন ‘নিত্যপুরাণ’, যার রচয়িতা তিনি স্বয়ং।

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাপ্লায়েড ফিজিক্স ও ইলেক্ট্রনিক্স বিভাগ থেকে স্নাতকোত্তর এই লেখকের নাট্য-অভিযাত্রা শুরু পথনাটকের মাধ্যমে। সেও বিশ্ববিদ্যালয়-জীবনের আগে, কুষ্টিয়ায়। এর পর পড়াশোনা ও কাজের সূত্রে ভিন্ন ভিন্ন জায়গায় গড়ে তুলেছেন একাধিক নাট্য-সংগঠন। ‘সুরগাঁও’ নির্দেশনা দিচ্ছেন দেশ নাটকের ব্যানারে। এটি এই সংগঠনের ২২-তম প্রযোজনা।

মাসুম রেজা (জন্ম ২৫ ডিসেম্বর, কুষ্টিয়া) ।। ফটো : অনলাইন থেকে

লেখকের মুখ থেকেই শোনা যাক নাটকের গল্প :

সুরগাঁও আমাদের দেখা-অদেখার এক গ্রাম, খুব পরিচিত আবার অপরিচিতও। এ গাঁয়ে আনাল ফকির, আসমান, সুহি, হাক্কা ব্যাপারী, বাঁশিবুড়ি, ওষ্ঠকালা, নিহাররঞ্জন, কাবিল, কুসি ও মুজাহেবদের বাস। সুরগাঁওয়ের পত্তনকারী আনাল ফকির একশ আশি বছর আগে এক রাতে গ্রাম থেকে উধাও হন। উধাও হয়ে যাবার আগে কোনো একদিন বাঁশিবুড়ির হাতে দিয়ে যান এক মোহন বাঁশি। বলে যান, বাঁশির সুর দিয়ে মানুষের ভিতরের অসুরটাকে দূর করতে। সেই থেকে বাঁশিবুড়ি থানা থেকে আসামিদের চেয়ে নিয়ে এসে বাঁশি শেখায়। আসমান তার চার পুরুষ পরের বংশধর এবং ভবিষৎদ্রষ্টা। সে দেখে যে তার চাইর দাদা আনাল ফকির একশ আশি বছর পর সুরগাঁওয়ে ফিরছেন।

আসমানের ভবিষৎবাণীকে সত্য করে আনাল ফকির সুরগাঁওয়ে ফিরে আসেন। এর পরই নতুন এক সংকটের মুখোমুখী হয় সুরগাঁও। সময়ের বিপরীতে একশ আশি বছর আনাল ফকির  প্রত্নকাল ভ্রমণ করেন। তার ইচ্ছায় তিনি ভ্রমণ করেন ব্যাবিলন, স্যার টমাস মুরের সময়কালের ইংল্যান্ড, কুরুরাজ্য, দামেস্ক, সক্রেটিসের সময়কালের গ্রীসসহ অনেক জায়গা। এসব স্থান ভ্রমণকালে ব্যাবিলনের রানি, স্যার টমাস মুর, পাণ্ডবভার্যা দ্রৌপদী, সক্রেটিসের বন্ধু ক্রিটো এবং দামেস্কের আমীর অমূল্য কিছু উপহার দেন আনাল ফকিরকে। কালের বিপরীতে ভ্রমণ এবং কালের গর্ভ থেকে মূল্যবান সামগ্রী চুরির অভিযোগে তাম্রসেনার দল ঢুকে পড়ে সুরগাঁওয়ে। কালরক্ষী বলে নিজেদের পরিচয় দেওয়া সেনারা সময়কে শৃঙ্খলায় ফিরিয়ে আনতে চায়। সুরগাঁওয়ে শুরু হয় চূড়ান্ত বিশৃঙ্খলা; সুর আর অসুরের দ্বন্দ্ব।

নাটকটির উদ্বোধনী প্রদর্শনী ২০ জানুয়ারী সন্ধ্যা ৬.৩০, শিল্পকলা একাডেমী জাতীয় নাট্যশালা। এর পোস্টার ডিজাইন করেছেন শিল্পী মাসুক হেলাল।